add

ঢাকা, শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

ডলার দিয়ে ঘাম মুছে সমালোচনার শিকার আজম খান

স্পোর্টস ডেস্ক    

 প্রকাশিত: মে ২২, ২০২৪, ০৫:৪৯ বিকাল  

সম্প্রতি এক বিতর্কিত কাজ করেছেন পাকিস্তানের ক্রিকেটার আজম খান। অতি গরমে ঘামে সিক্ত হয়ে ডলার দিয়ে কপালের ঘাম মুছেছেন তিনি। যে কারণে স্বদেশিদের কঠিন সমালোচনার মুখেও পড়েছেন পাকিস্তান দলের এই উইকেটরক্ষক ব্যাটার।

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে আজম খানের একটি ভিডিও ভাইরাল হয়ে যায়। সেখানে দেখা যায়, ডলারের কয়েকটি নোট হাতে নিয়ে সতীর্থ বাবর আজমের সঙ্গে একান্ত আলাপ করছেন তিনি। বাবর তাকে জিজ্ঞেস করছেন-‘কী হয়েছে আব্বা?’ এ সময় কপালের ঘাম মুছতে মুছতে আজম খান বলেন, ‘এখানে অনেক গরম বন্ধু।’ এ সময় অন্য ক্রিকেটারদের উচ্চস্বরে হাসতে দেখা যায়।

আজম খানের এই ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে শেয়ার করে বিভিন্ন মন্তব্য করেছেন স্বদেশিরা। অনেকেই কড়া সমালোচনা করেছেন। তারা বলতে চাচ্ছেন, যেখানে পুুরো দেশ ডলার সংকট ও খাদ্যের অভাবে ভুগছে, সেখানে কীভাবে একজন ক্রিকেটার সেই মূল্যবান ডলার দিয়ে ঘাম মুছতে পারেন?

একজন লেখেন, কিছু ব্যতিক্রম ছাড়া পাকিস্তানের খেলাধুলার ইতিহাসে কারোরই দারুণ কোনো দক্ষতা, প্রভাব ও অবদান নেই। একটি ছোট বাচ্চার জন্যও তাদের কাছে আশা করার মতো কিছুই নেই। বর্তমানে তাদের কাছ থেকে মানুষ অনেকটাই আশাহীন।

ক্রিকেটারদের আরো শিক্ষাগ্রহণ প্রয়োজন উল্লেখ করে অন্য একজন বলেন, এজন্যই আমরা সবসময় বলে থাকি মৌলিক শিক্ষা অপরিহার্য। এই লোকেরা বিশ্ব ভ্রমণ করে। কিন্তু মৌলিক মানবিক মূল্যবোধ শিখে নাই। আন্তর্জাতিক প্ল্যাটফর্মে পাঠানোর আগে দয়া করে তাদের স্কুলে পাঠান।

অনেকে ক্রিকেটারদের বিলাসবহুল মন-মানসিকতার সমালোচনা করেছেন।

একজন লেখেন, খাদ্যের অভাবে পাকিস্তানে অনেক মানুষ মারা যাচ্ছে। তাদের অর্থ অনুদান দেওয়ার বদলে এসব লোকেরা ইন্টারনেট, ওয়াইফাই, দামি মোবাইলের পেছনে টাকা খরচ করছেন। তারা ছাদের নিচে বসে বসে গরিব মানুষের তুচ্ছ-তাচ্ছিল্য করছেন।

দৈনিক সরোবর/এএল