add

ঢাকা, শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

‘জিয়াউর রহমান ১১ হাজার স্বাধীনতা বিরোধীকে মুক্তি দিয়েছিল’

সরোবর প্রতিবেদক  

 প্রকাশিত: মে ১৭, ২০২৪, ০৭:৪৮ বিকাল  

জিয়াউর রহমান ক্ষমতায় এসে ১১ হাজার স্বাধীনতা বিরোধীকে মুক্তি দিয়েছিল বলে মন্তব্য করেছেন, আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, অনেকে বলেন বঙ্গবন্ধু স্বাধীনতা বিরোধীদের ক্ষমা করে দিয়েছিলেন, এটা সত্য নয়।

শুক্রবার বিকেলে তেজগাঁওয়ে ঢাকা জেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে শেখ হাসিনার ৪৪ তম স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষ্যে আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, জিয়াউর রহমান ক্ষমতায় এসে ১১ হাজার স্বাধীনতা বিরোধীকে মুক্তি দিয়েছিল। তাদের মধ্যে মানবতাবিরোধী অপরাধে জড়িত ছিল ৭১৩ জন। এই ইতিহাস ভুলে গেছেন? আমি কি মিথ্যা বলেছি? জিয়াউর রহমান কি করেছিল এর প্রমাণ আছে।

জিয়াউর রহমানের সমালোচনা করে আওয়ামী লীগ সম্পাদক বলেন, জিয়াউর রহমান ৭৫ এর পর বিভিন্ন সামরিক বাহিনীর ১১শ সদস্যকে নাস্তা খেতে খেতে ফাঁসি দিয়েছিল। 

বেসামাল বিএনপি প্রতিনিয়ত আওয়ামী লীগকে আক্রমণ করছে অভিযোগ করে কাদের বলেন, আমি তাদের বলতে চাই, মুক্তির কথা বলেন, লজ্জা করে না? জিয়াউর রহমান আওয়ামী লীগসহ অন্যান্য দলের ৬২ হাজার নেতাকে জেলে রেখেছিলো। আপনাদের কতজন নেতা জেলে আছেন? আমাদের ৩ হাজার নেতাকর্মী ও সরকারি অফিসারদের গুম করেছিলেন জিয়াউর রহমান।

প্রতিবেশী দেশ নাকি আমাদের নিয়ন্ত্রণ করে—ফখরুল সাহেবকে বলছি, শেখ হাসিনাকে কেউ নিয়ন্ত্রণ করতে পারে না। আমাদের নিয়ন্ত্রণ করে দেশের জনগণ, সংবিধান। এই সংবিধানের বাইরে আমরা যাবো না। যত ষড়যন্ত্র করুক, বিদেশি শক্তির নামে হুমকি ধমকি দিতে পারেন। তিনি কোনো বিদেশি শক্তির পরোয়া করেন না, বাংলাদেশের জনগণকে পরোয়া করেন।

তিনি বলেন, বাংলাদেশে গত ৪৪ বছরের ইতিহাসে শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তনের পর থেকে যে পরিবর্তন হয়েছে, এই পরিবর্তন, রূপান্তরের রূপকার শেখ হাসিনা। তিনি বদলে যাওয়া বাংলাদেশের রূপকার। বঙ্গবন্ধু পয়েট অব পলিটিক্স আর শেখ হাসিনা ম্যাজিক অব পলিটিক্স। শেখ হাসিনার প্রত্যাবর্তন মুক্তিযুদ্ধের হারিয়ে যাওয়া মূল্যবোধের প্রত্যাবর্তন।

দৈনিক সরোবর/এএস