ঢাকা, শুক্রবার, ০৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ২০ মাঘ ১৪২৯

বাংলাদেশের সঙ্গে বন্ধুত্ব রক্ষায় বিশেষ গুরুত্ব দিচ্ছে দিল্লি

সরোবর ডেস্ক 

 প্রকাশিত: জানুয়ারী ২৩, ২০২৩, ০৫:৪৩ বিকাল  

দ্বাদশ জাতীয় নির্বাচনের বাকি আর এক বছরের মতো। প্রতিবেশী দেশ ভারত এই নির্বাচনকে সামনে রেখে বাংলাদেশের সঙ্গে বন্ধুত্ব রক্ষায় বিশেষ গুরুত্ব দিচ্ছে। সঙ্গে প্রতিবেশী নেপালও গুরুত্ব পাচ্ছে ভারতের কাছে। এর অংশ হিসেবে ভারত হয়ে নেপালের যে বিদ্যুৎ বাংলাদেশে আসার কথা, এ ব্যাপারে ইতিবাচক মনোভাব পোষণ করছে নয়া দিল্লি।

সোমবার ভারতের পশ্চিমবঙ্গের প্রভাবশালী দৈনিক আনন্দবাজার এক প্রতিবেদনে এই কথা জানিয়েছে।

আনন্দবাজার লিখেছে, ‘প্রতিবেশী প্রথম’- এই নীতির সঙ্গে সঙ্গতি রেখেই ভারতীয় এলাকা দিয়ে বাংলাদেশকে নেপালের বিদ্যুৎসরবরাহ করার যৌথ প্রস্তাব খতিয়ে দেখছে দিল্লি। কূটনৈতিক সূত্রের মতে, এই বিষয়ে ইতিবাচক পদক্ষেপ নেওয়ার সম্ভাবনাই বেশি। প্রাথমিকভাবে ৫০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ বাংলাদেশকে রফতানি করার পরিকল্পনা রয়েছে নেপালের।

নেপাল ইলেকট্রিসিটি অথরিটি জানিয়েছে, ভারতের বিদ্যুৎ পরিবহনের বর্তমান পরিকাঠামো ব্যবহার করে এই বিদ্যুৎ পাঠানোর জন্য নয়া দিল্লির অনুমতি চাওয়া হয়েছে। এই বিষয়ে বাংলাদেশ এবং নেপালের মধ্যে আগস্ট মাসেই চুক্তি হয়ে যায়।

সূত্রের খবর, আগামী মাসে নয়া দিল্লিতে নেপালের সংশ্লিষ্ট কর্তাদের সঙ্গে বৈঠক হবে ভারতের। এই সংক্রান্ত চুক্তিকে চূড়ান্ত করা হতে পারে সেই বৈঠকে। বাংলাদেশের পক্ষ থেকেও শক্তি-বাণিজ্যের ক্ষেত্রে ভারতের সহযোগিতা প্রার্থনা করা হয়েছে। বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার গত সেপ্টেম্বরের ভারত সফরের সময়েই এই বিষয়ে নয়া দিল্লিকে অনুরোধ জানানো হয়েছিল। বাংলাদেশ এখনই ভারত থেকে ১১৬০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ আমদানি করে। ঢাকার লক্ষ্য, নেপালের সঙ্গে যৌথ উদ্যোগে ৬৮৩ মেগাওয়াট সংকোশী-৩ জলবিদ্যুৎ প্রকল্প গড়ার। এ কাজে ভারতের সহযোগিতা প্রয়োজন।

আনন্দবাজার আরো লিখেছে- বাংলাদেশে ভোট এগিয়ে আসছে। নেপালে তৈরি হয়েছে মাওবাদী নেতা প্রচণ্ডের নেতৃত্বাধীন নতুন সরকার। দক্ষিণ এশিয়ার সামগ্রিক ভূকৌশলগত রাজনীতিতে এই দুই দেশকে নিজেদের বন্ধুত্বপূর্ণ অক্ষের মধ্যে রাখাটা অগ্রাধিকার মোদী সরকারের। 

পাশাপাশি শক্তির ক্ষেত্রে ভারত নেপালের সঙ্গেও বড়মাপের সহযোগিতা করতে চায়। নেপালের প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পরে প্রথম বিদেশ সফরেই প্রচণ্ড নয়া দিল্লি আসতে চান বলে ইচ্ছা প্রকাশ করেছেন। চীনের কথা মাথায় রেখে নেপালের সঙ্গে শক্তি সমঝোতা ক্রমশ বাড়িয়ে তোলা নয়া দিল্লির কৌশলের মধ্যেও পড়ে।