add

ঢাকা, শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

কান উৎসব ২০২৪

অদ্ভুত মেজাজে পর্দা উঠছে এবার 

সরোবর  ডেস্ক

 প্রকাশিত: মে ১৪, ২০২৪, ০৮:৩৮ রাত  

ফ্রান্সের রাজধানী প্যারিসে এবার গ্রীষ্মকালীন অলিম্পিক গেমসের ভেন্যু । ২৬ জুলাই শুরু হচ্ছে এর মহাযজ্ঞ। তার প্রায় আড়াই মাস আগে আজ সন্ধ্যায় (বাংলাদেশ সময় রাত সোয়া ১১টা) ভূমধ্যসাগরের তীরে ফরাসি উপকূলীয় শহরে পর্দা উঠতে যাচ্ছে সিনেমার অলিম্পিক হিসেবে খ্যাত কান উৎসবের। এতে বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তের নানান ঘরানার চলচ্চিত্র উদযাপনের জন্য জড়ো হচ্ছেন হেভিওয়েট তারকা-নির্মাতারা। এবারও থাকছে যথারীতি নতুন নতুন ও ধ্রুপদী চলচ্চিত্রের প্রদর্শনী, তারকা-খচিত সংবাদ সম্মেলন, ঝলমলে পার্টিসহ চমকপ্রদ সব আয়োজন। এছাড়া বিশ্বের বৃহত্তম চলচ্চিত্র উৎসব কানের বাণিজ্যিক শাখায় প্রতিবছর ১৪ হাজারের বেশি ফিল্ম প্রফেশনাল অংশ নিয়ে থাকেন। তাদের সুবিধার্থে সাগরপাড়ে সাজানো হয়েছে বিভিন্ন দেশের প্যাভিলিয়ন।

কানে মুদ্রার একপিঠে চাকচিক্য থাকলেও অন্যপিঠে থাকে কোনও না কোনও বিতর্কের আঁচ। উৎসবটির প্রতিটি আসর উদ্বোধনের আগমুহূর্তে স্বাভাবিকভাবে এক ধরনের রোমাঞ্চকর আমেজ ছড়ায়। তবে এবার ৭৭তম আসরে সেই উন্মাদনার লাগাম টেনে ধরেছে মিটু হ্যাশট্যাগ আন্দোলনকে কেন্দ্র করে বোমা ফাটানোর মতো অভিযোগ ওঠার আভাস এবং উৎসবটির ফ্রিল্যান্সার কর্মীদের ধর্মঘটে যাওয়ার গুজব। শঙ্কা রয়েছে, এসব কারণে কানের ৭৭তম আসর না জানি ভেস্তে যায়! সর্বশেষ ১৯৬৮ সালে ফ্রান্স জুড়ে শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভের কারণে কান উৎসব বাতিল হয়। এর আগে ১৯৪৮ ও ১৯৫০ সালে অর্থের অভাবে বাতিল হয় কান। এছাড়া ২০২০ সালে করোনা মহামারির কারণে কানের আসর বসেনি।

ইংরেজিতে বহুল প্রচলিত একটি প্রবাদ ‘দ্য শো মাস্ট গো অন’। কান উৎসব আয়োজকদের সাজানো চলচ্চিত্রের শোকেসে সেটাই যেন ফুটে উঠছে। এবারের অফিসিয়াল সিলেকশনকে সাম্প্রতিক সময়ের মধ্যে অন্যতম সেরা ভাবা হচ্ছে। আয়োজকরা এদিক দিয়ে পূর্ণশক্তি দেখানোর ব্যবস্থা করেছেন। জর্জ মিলারের বহুল আলোচিত ‘ফিউরিওসা: অ্যা ম্যাড ম্যাক্স সাগা’ সাড়া জাগাতে পারে। কেভিন কস্টনারের বহুল কাঙ্ক্ষিত ‘হরাইজন, অ্যান আমেরিকান সাগা’। এর প্রথম পর্বের ওয়ার্ল্ড প্রিমিয়ার হবে ১৯ মে। দুই পর্বের ছবিটি ওয়ার্নার ব্রাদার্স মুক্তি দেবে ২৮ জুন ও ১৬ আগস্ট। এতে কেভিন কস্টনারের সঙ্গে অভিনয় করেছেন সিয়েনা মিলার, স্যাম ওয়ার্দিংটন ও জেনা ম্যালোন।

অফিসিয়াল সিলেকশনে আরও আছে যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের ব্যবসায়ী জীবনের শুরুর দিক নিয়ে নির্মিত ‘অ্যাপ্রেনটিস’, জার্মানিতে নির্বাসিত রুশ পরিচালক কিরিল সেরেব্রেনিকভের ‘লিমোনভ’ (রুশ লেখক ইদুয়ার্দ লিমোনভের বায়োপিক), ইরানি বংশোদ্ভূত ডেনমার্কের আলি আব্বাসির পরিচালনায় ডোনাল্ড ট্রাম্পের বায়োপিক ‘দ্য অ্যাপ্রেনটিস’, নেপলসের পটভূমিতে নির্মিত ইতালির পাওলো সরেন্তিনোর ‘পার্তেনোপে’, শন বেকারের ‘আনোরা’, আন্ড্রেয়া আর্নল্ডের ‘বার্ড’, ডেভিড ক্রোনেনবার্গের ‘দ্য শ্রাউডস’, কোরালি ফারজি পরিচালিত ‘দ্য সাবস্ট্যান্স’, জিয়া জাং-কি’র ‘কট বাই দ্য টাইডস’, করিম আইনুজের ‘মোটেল ডেস্টিনো’, মিগেল গোমেজের ‘গ্র্যান্ড ট্যুর’, ক্রিস্তফ অনোরেঁর ‘মার্সেলো মিয়ো’, জিল ল্যুলুশ পরিচালিত ‘বিটিং হার্টস’, আগাত রিদাঁজের ‘ওয়াইল্ড ডায়মন্ড’ ও মান্নেস ফন হোর্ন ‘দ্য গার্ল উইথ দ্য নিডেল’ প্রভৃতি। আর্ট-হাউস ঘরানার গুণী চলচ্চিত্র পরিচালকদের মধ্যে সক্রিয় কয়েকজনের নতুন কাজ আছে এবারের কান উৎসবে। অভিজ্ঞদের পাশাপাশি নবীন নির্মাতাদের ছবিও রয়েছে। কান উৎসবে এমনটাই তো প্রত্যাশিত! নবীনদের মধ্যে উল্লেখযোগ্য ভারতের পায়েল কাপাডিয়ার ‘অল উই ইমাজিন অ্যাজ লাইট’। এর মাধ্যমে দীর্ঘ ৩০ বছর পর কোনও ভারতীয় চলচ্চিত্র মূল প্রতিযোগিতায় জায়গা পেয়ে স্বর্ণপামের জন্য মনোনীত হলো।

রোমাঞ্চিত হওয়ার মতো আরও অনেক ছবি আছে। এরমধ্যে অন্যতম আকর্ষণ ‘গডফাদার’ ট্রিলজি খ্যাত কিংবদন্তি ফ্রান্সিস ফোর্ড কপোলা পরিচালিত ‘মেগালোপোলিস’। কল্পবিজ্ঞানধর্মী বড় ক্যানভাসের ছবিটি নিজের টাকায় একদশক ধরে নির্মাণ করেছেন তিনি। এতে অভিনয় করেছেন অ্যাডাম ড্রাইভার, নাতালি এমানুয়েল ও ফরেস্ট হুইটেকার। ৮৫ বছর বয়সী কপোলার বর্ণাঢ্য ক্যারিয়ার বলছে, প্রত্যেকে ছবিটি দেখতে মরিয়া থাকবে!

১৯৭৪ সালে ফ্রান্সিস কপোলার ‘অ্যাপোক্যালিপস নাউ’ স্বর্ণপাম জয়ের ৫০ বছর পূর্ণ হচ্ছে এবারের আসরে। যদিও এটি ছিল বিতর্কিত, কারণ কানে প্রদর্শনের সময় এর কাজ পুরোপুরি শেষ হয়নি! ১৯৭৯ সালে তার পরিচালিত ‘দ্য কনভারসেশন’ ছবিটিও স্বর্ণপাম জিতেছে। ৪৫ বছর পর ‘মেগালোপলিস’ নিয়ে মূল প্রতিযোগিতায় ফিরছেন তিনি। ‘পুয়োর থিংস’ অভাবনীয় সাফল্যের রেশ কাটতে না কাটতে অভিনেত্রী এমা স্টোন ও গ্রিক পরিচালক ইয়োর্গোস লানতিমোস আবারও জুটি বেঁধে আনছেন ‘কাইন্ডস অব কাইন্ডনেস’। স্বর্ণপামের লড়াইয়ে থাকা হেভিওয়েট তারকা-নির্মাতার ছবিগুলোর মধ্যে এই দুটি অন্যতম। স্বর্ণপামের জন্য মনোনীত ২২টি চলচ্চিত্রের মধ্যে মিশেল অ্যাজানাভিসুস পরিচালিত ‘দ্য মোস্ট প্রেসাস অব কারগোজ’ অ্যানিমেটেড ছবি। এর মাধ্যমে কানের মূল প্রতিযোগিতায় ১৬ বছর পর অ্যানিমেটেড ছবি স্থান পেলো। ২০০৮ সালে সর্বশেষ ‘ওয়াল্টজ উইথ বশির’ ছিল স্বর্ণপামের জন্য মনোনীত অ্যানিমেটেড ছবি। প্রতিযোগিতার বাইরে দেখানো হবে চীনে নারীর অধিকার বিষয়ে জাং জিয়ি অভিনীত ‘শি হ্যাজ নো নেম’, ব্রাজিলের বর্তমান প্রেসিডেন্টের ওপর নির্মিত অলিভার স্টোনের প্রামাণ্যচিত্র ‘লুলা’।

একদিকে দারুণ কিছু চলচ্চিত্র, অন্যদিকে অপরাধমূলক অভিযোগ ওঠার পূর্বাভাস ও ধর্মঘটের শঙ্কা নিয়ে উদ্বিগ্ন পরিস্থিতি– সবকিছুর সম্মিলনে অদ্ভুত মেজাজে কান শুরুর অপেক্ষায় সবাই। যেকোনও অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা সামাল দিতে আয়োজকরা ক্রাইসিস ম্যানেজমেন্ট টিম (সংকট ব্যবস্থাপনা দল) নিয়ে এসেছেন কানে। উদ্বোধনী অনুষ্ঠান চলাকালে যৌন নির্যাতনের অভিযোগে ১০ জন গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তির নাম প্রকাশের পর সৃষ্ট পরিস্থিত থেকে শুরু করে যেকোনও কিছু মোকাবিলায় নিয়োজিত থাকবেন এই দলের সদস্যরা। ‘মি টু’র একটি দৃশ্য

ধারণা করা হচ্ছে– যাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠতে যাচ্ছে তাদের বেশ কয়েকজনের চলচ্চিত্র আছে এবারের অফিসিয়াল সিলেকশনে। ফলে উৎসবের লাইনআপ থেকে বাদ পড়তে পারে সেগুলো। এছাড়া কয়েকজন অভিযুক্তকে লালগালিচায় না আসার জন্য বলা হতে পারে। যদিও সবই নির্ভর করছে অভিযোগ কতটা গুরুতর হবে তার ওপর।

ফরাসি অভিনেত্রী-নির্মাতা জুডিথ গোদরেজের স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র ‘মি টু’তে যৌন হয়রানির শিকার কয়েকজন নারীর কথা তুলে ধরা হয়েছে। বুধবার (১৫ মে) উৎসবে এর বিশেষ প্রদর্শনী হবে। ধারণা করা হচ্ছে, এই ছোট দৈর্ঘ্যের ছবিতেই হেভিওয়েট কয়েকজনের দিকে অভিযোগের আঙুল উঠবে। উৎকণ্ঠা রয়েছে, ফরাসি শ্রম আইনে প্রস্তাবিত পরিবর্তন নিয়ে উৎসবের ফ্রিল্যান্স কর্মীরা ধর্মঘটের ডাক দিতে পারেন। এর প্রভাবে গোটা আয়োজন থমকে যাওয়ার শঙ্কা করা হচ্ছে।

মূল প্রতিযোগিতায় থাকা ‘দ্য সিড অব দ্য স্যাক্রেড ফিগ’ গোপনে নির্মাণ করায় পরিচালক মোহাম্মদ রাসুলফ নিজের দেশ ইরানে সাজাপ্রাপ্ত হয়েছেন। কান থেকে ছবিটি প্রত্যাহার করতে ইরানি সরকার তার ওপর চাপ প্রয়োগ করেছিল। তবে তিনি তাতে অস্বীকৃতি জানান। এবার সরকারকে না জানিয়েই দেশত্যাগ করেছেন ৫১ বছর বয়সী মোহাম্মদ রাসুলফ। ইরানি সাংবাদিক মনসুর জাহানি বাংলা ট্রিবিউনকে ই-মেইলের মাধ্যমে খবরটি জানিয়েছেন। এবার চকচকে লালগালিচায় প্রবীণদের চেয়ে তুলনামূলক তরুণ তারকারাই বেশি জৌলুস ছড়াবেন বলে ধারণা করা হচ্ছে। অনূর্ধ্ব-৩৫ তারকাদের মধ্যে পল শ্রেডারের ‘ও কানাডা’র অভিনেতা জ্যাকব এলোর্ডি ও জ্যাক অঁদিয়ারের ‘এমিলিয়া পেরেস’ তারকা সেলেনা গোমেজ স্পটলাইটে কেড়ে নিতে পারেন। তাদের ছবি দুটি আছে মূল প্রতিযোগিতায়। প্রতিযোগিতার বাইরে থাকা ‘ফিউরিওসা: অ্যা ম্যাড ম্যাক্স সাগা’র অভিনেত্রী আনিয়া টেলর-জয়ের দিকেও ক্যামেরার তুমুল ঝলকানি দেখা যেতে পারে! ডেমি মুর, উমা থারম্যানসহ আরও অনেক তারকার পদধূলি পড়বে কানসৈকতে।

সর্বশেষ তিন আসরে হলিউডের বর্ষীয়ান তারকা-নির্মাতাদের বিশেষভাবে সম্মান দেখিয়েছে কান। কপোলা তো এবার আছেনই স্বর্ণপামের মনোনয়নে, এছাড়া সম্মানসূচক স্বর্ণপাম পাবেন তিনবার অস্কারজয়ী আমেরিকান অভিনেত্রী মেরিল স্ট্রিপ, ‘স্টার ওয়ারস’ ও ‘ইন্ডিয়ানা জোন্স’ ফ্র্যাঞ্চাইজের স্রষ্টা জর্জ লুকাস। গত বছর হ্যারিসন ফোর্ড এবং এর আগের বছর টম ক্রুজকে একই সম্মান দেওয়া হয়। সুপারহিরো ছবির যুগে কিছুটা বিস্মৃত এমন কিংবদন্তিদের দিকে স্পটলাইট ফিরিয়ে আনা হতে পারে কানের ইচ্ছা।

গ্র্যান্ড থিয়েটার লুমিয়েরের সামনে বসানো হয়েছে লালগালিচাউদ্বোধনী আয়োজনের কিছু তথ্য। কান শহর রূপান্তর হয়েছে যেন সিনেমার পার্কে! সবখানে ৭৭তম কান চলচ্চিত্র উৎসবের অফিসিয়াল পোস্টারে সাজ সাজ রব। জাপানের প্রয়াত কিংবদন্তি পরিচালক আকিরা কুরোসাওয়ার ‘র্যাপসোডি ইন অগাস্ট’-এর একটি হৃদয়ছোঁয়া দৃশ্য নিয়ে এটি সাজানো হয়েছে। পালে দে ফেস্টিভ্যাল ভবনের তিনটি অংশে এর সুবিশাল তিনটি ব্যানারে দেখা যাচ্ছে সেই দৃশ্য। এগুলোর ওজন ১২৫ কেজি! জাপানের স্টুডিও গিবলিকে সম্মানসূচক স্বর্ণপাম দেওয়া হবে এবারের আসরে। ব্যক্তির বাইরে কোনও প্রতিষ্ঠানের এমন অর্জন হবে এটাই প্রথম।  

৭৭তম কান উৎসবের উদ্বোধনী চলচ্চিত্র হিসেবে দেখানো হবে ফ্রান্সের কোয়ান্তাঁ দ্যুপিয়ো পরিচালিত ‘দ্য সেকেন্ড অ্যাক্ট’। মঙ্গলবার স্থানীয় সময় রাত ৮টা ১৫ মিনিটে পালে দে ফেস্টিভ্যাল ভবনের গ্র্যান্ড থিয়েটার লুমিয়েরে প্রতিযোগিতার বাইরে এর ওয়ার্ল্ড প্রিমিয়ার হবে। আজই ফ্রান্সের প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পাবে ফরাসি ভাষার কমেডি ছবিটি। এতে অভিনয় করেছেন ফরাসি তিন তারকা লেয়া সেদ্যু, ভাসোঁ লান্দোঁ ও লুই গারেল। লালগালিচায় একসঙ্গে হাজির হবেন তারা।

উদ্বোধনী ও সমাপনী অনুষ্ঠান ফ্রান্সে ফ্রান্স টেলিভিশন এবং আন্তর্জাতিকভাবে ব্রুট সরাসরি সম্প্রচার করবে। উদ্বোধনী ও সমাপনী অনুষ্ঠান সঞ্চালনার দায়িত্ব পেয়েছেন ফরাসি কমেডিয়ান-অভিনেত্রী ক্যামিল কোতাঁন। এবারের উৎসব চলবে ২৫ মে পর্যন্ত।

বিচারকের আসনে যারা মূল প্রতিযোগিতা বিভাগে বিচারকদের প্রধান থাকছেন ‘বার্বি’র পরিচালক গ্রেটা গারউইগ। তার নেতৃত্বাধীন বিচারক প্যানেলে আছেন আমেরিকান আদিবাসী অভিনেত্রী লিলি গ্ল্যাডস্টোন, ফরাসি অভিনেত্রী এভা গ্রিন, লেবানিজ পরিচালক ও চিত্রনাট্যকার নাদিন লাবাকি, তুর্কি চিত্রনাট্যকার ও আলোকচিত্রী এব্রু জেলান, জাপানিজ পরিচালক হিরোকাজু কোরি-এদা, ইতালিয়ান অভিনেতা পিয়ারফ্রান্সেসকো ফাভিনো, স্প্যানিশ পরিচালক ও চিত্রনাট্যকার হুয়ান আন্তোনিও বায়োনা ও ফরাসি অভিনেতা-প্রযোজক ওমর সি।

আঁ সাঁর্তে রিগা বিভাগের প্রধান বিচারক থাকছেন কানাডিয়ান পরিচালক-অভিনেতা জাভি দোলান। তার নেতৃত্বে বিচারকের দায়িত্ব পালন করবেন মরক্কোর পরিচালক আজমেই এল মুদির, ফরাসি পরিচালক মাইমুনা দুকুরে, লাক্সেমবার্গিস-জার্মান অভিনেত্রী ভিকি ক্রিপস ও আমেরিকান সমালোচক টড ম্যাকার্থি। স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র এবং শিক্ষার্থীদের বিভাগ সিনেফঁদাসোতে বেলজিয়ান অভিনেত্রী লুবনা আজাবালের নেতৃত্বে বিচারক হিসেবে কাজ করবেন সার্বিয়ান পরিচালক ভ্লাদিমির পেরিসিচ, ফরাসি পরিচালক ম্যারি-ক্যাস্টি মঁচো-শার, ফরাসি প্রযোজক ক্লদিন নুগারে, ডিরেক্টরস ফোর্টনাইটের সাবেক পরিচালক পাওলো মোরেত্তি। ক্যামেরা দ’র পুরস্কারের প্রধান বিচারক ফরাসি অভিনেত্রী এমানুয়েল বেয়াঁ ও বেলজিয়ান-কঙ্গোলিজ সংগীতশিল্পী-নির্মাতা বালোজি। 

কানে অলিম্পিকের মশাল উৎসব আয়োজক ও কান শহরে কর্তৃপক্ষ অলিম্পিকের মশাল নিয়ে সাগরপাড়ের শহরে। ১৮ মে লালগালিচায় হাজির করা হবে এটি। অলিম্পিক মশালের অংশ হিসেবে ২১ মে দেখানো হবে মিকাইল গ্যামরাসনির প্রামাণ্যচিত্র ‘অলিম্পিকস! দ্য ফ্রান্স অব দ্য গেমস’। এতে অতিথি হিসেবে থাকবেন ক্রীড়াব্যক্তিত্ব ও বিভিন্ন খেলোয়াড়েরা। সব মিলিয়ে আসল অলিম্পিক আসর শুরুর আগেই যেন সিনেমার অলিম্পিকের ছোঁয়া মিলছে এবারের কান উৎসবে।

দৈনিক সরোবর/এসএস