add

ঢাকা, রবিবার, ১৪ জুলাই ২০২৪, ৩০ আষাঢ় ১৪৩১

‘আমার আর শাহরুখের সম্পর্কে কারো অজানা নয়’

বিনোদন ডেস্ক

 প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ১৭, ২০২৩, ০৭:৩৪ বিকাল  

নিজের ক্যারিয়ারের প্রথম ছবি ‘ওম শান্তি ওম’-এ শাহরুখের সঙ্গে জুটি বাঁধেন দীপিকা পাডুকোন। এরপর আর পিছনে ফিরে তাকাতে হয়নি দীপিকার। ক্যারিয়ারে একের পর এক সাফল্যে পৌছে গেছেন বলিউডের শীর্ষ নায়িকার তালিকায় সবার উপরে।

অন্যদিকে শাহরুখের জন্যও দীপিকা যেন ‘সৌভাগ্যের প্রতীক’। এই নায়িকা তার সিনেমার যেকোনো চরিত্রে থাকলেই সেই ছবি ব্যর্থতার মুখ দেখেনি। তাই বলিউডে শাহরুখ-দীপিকার প্রতিটি সিনেমাই হয়েছে সুপারহিট।

একসঙ্গে দীর্ঘদিন কাজ করায় দুজনের বোঝাপড়াটাও বেশ দারুণ। সম্প্রতি শাহরুখ সম্পর্কে দীপিকা বলেছেন, ‘শাহরুখ কোনো সিনেমার প্রস্তাব দিলে চোখ বুজে রাজি হবো। কারণ আমি মনে করি, আমার কোনো বিপদ হলে সবার আগে তিনিই এগিয়ে আসবেন।’

২০১৮ সালে ‘জিরো’ সিনেমা ফ্লপ যাওয়ায় মাঝে লম্বা এক বিরতি নেন শাহরুখ। এরপর ‘পাঠান’ সিনেমা দিয়ে চলতি বছর পর্দায় ফেরেন তিনি। যেখানে তার বিপরীতে অভিনয় করেন দীপিকা। সেই ছবি বক্স অফিসে ৫০০ কোটি রুপির বেশ কালেকশন করে। এরপর ‘জওয়ান’ সিনেমাতেও ক্যামিও চরিত্রে অভিনয় করেন দীপিকা। সেটিও ব্লকবাস্টার সিনেমায় পরিণত হয়েছে। 

তবে নিজেকে শাহরুখের ‘লাকি চার্ম’ ভাবতে  নারাজ দীপিকা। সাংবাদিকদের এ সংক্রান্ত এক প্রশ্নের জবাবে অভিনেত্রী বলেন, ‘আমার আর শাহরুখের সম্পর্কের কথা কারো অজানা নয়। তার প্রতি আমার হৃদয়ে ভালোবাসা আর সম্মান আছে। তাই আমি জানি, যদি কখনো বিপদে পড়ি, তখন সবার আগে শাহরুখ আমাকে সাহায্যের জন্য এগিয়ে আসবেন। তাই তিনি যখন কোনো চরিত্রের জন্য আমায় প্রস্তাব দিচ্ছেন, তখন আমি এটুকু বুঝতে পারি যে উনি ভালো বুঝেই সেটা করছেন।’

এ কারণেই জওয়ান সিনেমায় আমার চরিত্রের দৈর্ঘ্য যেমনই হোক না কেন, আমি রাজি হয়েছি। যদিও প্রথমে আমার চরিত্রটিকে ক্যামিও ভাবলেও পরে সিনেমা দেখে বুঝলাম, জওয়ান-এ অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ চরিত্র শাহরুখ আমাকে দিয়েছেন- যোগ করেন দীপিকা

জওয়ান সিনেমায় দীপিকাকে কাস্টিং প্রসঙ্গে শাহরুখ বলেন, ঐশ্বর্য চরিত্রটির জন্য অ্যাটলি প্রথম আমাকে দীপিকার নাম বলেছিল। কিন্তু আমি দ্বন্দ্বে ছিলাম দীপিকা আমার মায়ের চরিত্রে অভিনয় করতে রাজি হবেন কিনা। এরপর আমরা ‘পাঠান’-এর ‘বেশরম রং’ গানের শুটিংয়ের সময় দীপিকাকে প্রথম প্রস্তাব দিই। ও শুনেই রাজি হয়। পরে হায়দরাবাদে দীপিকা যখন ‘প্রোজেক্ট কে’-র শুটিং করছে, সেসময় আমি ও অ্যাটলি সেখানে গিয়ে চিত্রনাট্য পড়ে শোনাই। আমরা বলেছিলাম ওর চরিত্রটি ক্যামিও। কিন্তু সিনেমাটি দেখে দীপিকা বলল, ওই তো সিনেমার অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ চরিত্র। আসলে আমরা ওকে বোকা বানিয়ে গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে কাজ করিয়ে নিয়েছি। ও বুঝতেই পারেনি।